দেশ সমাচার ডেস্ক : আজ আন্তর্জাতিক নারী দিবস। নারীদের অধিকার রক্ষায় বিশ্বব্যাপী সমতাভিত্তিক সমাজ-রাষ্ট্র গড়ার লক্ষ্যে প্রতিবছর মার্চ মাসের ৮ তারিখে এ দিবসটি উদযাপন করা হয়। জাতিসংঘ ২০২২ সালের নারী দিবসের প্রতিপাদ্য নির্ধারণ করেছে ‌‘নারীর সুস্বাস্থ্য ও জাগরণ’।

নারী দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আলাদা বাণী দিয়েছেন। দেশের উন্নয়নকে টেকসই করতে নারী-পুরুষ নির্বিশেষে সকলকে সহযাত্রী হিসেবে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, সরকারের বিভিন্ন উদ্যোগের সফল বাস্তবায়নের ফলে নারীর উন্নয়ন আজ সুস্পষ্টভাবে দৃশ্যমান।

ব্যবসা-বাণিজ্য, রাজনীতি, বিচার বিভাগ, প্রশাসন, কূটনীতি, সশস্ত্র-বাহিনী, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী-বাহিনী, শান্তিরক্ষা মিশনসহ সর্বক্ষেত্রে নারীর সফল অংশগ্রহণের মাধ্যমে দেশ ক্রমান্বয়ে উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাচ্ছে। আন্তর্জাতিক অঙ্গনেও নারীরা দেশের জন্য সাফল্য নিয়ে এসেছেন বলে উল্লেখ করেন মো. আবদুল হামিদ।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, স্বাধীনতা লাভের পর ৫০ বছরে বাংলাদেশের অন্যতম অর্জন হচ্ছে লিঙ্গ-বৈষম্য কমিয়ে নারীর ক্ষমতায়নের পথে এগিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য সাফল্য লাভ। এরই ধারাবাহিকতায় এদেশের উন্নয়নের ধারাকে টেকসই করার লক্ষ্যে আমাদের সরকার তৃণমূল পর্যায় থেকে নারীর খাদ্য নিরাপত্তা, স্বাস্থ্য ও শিক্ষাকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়েছে। চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের এ যুগে জ্ঞানভিত্তিক দক্ষ মানবসম্পদ গড়ে তোলার জন্য নারী-পুরুষ সবাইকে তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে বলে জানান তিনি।