বাড়ি ফেরার অপেক্ষায় দুই লাখ কর্মী

জলসীমা বন্ধ অপেক্ষায় দুই লাখ কর্মী
সাগরে ভাসছে জাহাজ : ফাইল ছবি

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে জলসীমা বন্ধ। ফলে বিশ্বজুড়ে প্রায় দুই লাখ মানুষ, যাঁরা জাহাজে কাজ করেন, তাঁরা সমুদ্রে আটকা পড়েছেন।

জাহাজে কাজ করেন, এমন বেশ কয়েকজন আত্মহত্যা করেছেন। বিশ্বজুড়ে জাহাজের কর্মীদের আটকে পড়ার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘ। সংস্থাটি বলেছে, জাহাজগুলো সমুদ্রে আটকে পড়ায় সেখানে মানবিক সংকট দিন দিন বাড়ছে।

আরো পড়ুন : যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু ১ লাখ ৪০ হাজার ছাড়াল

আরো পড়ুন : ইয়েমেনে সেনা অভিযানে ২৪ জন নিহত

করোনার সংক্রমণ ব্যাপক আকার ধারণ করার আগে এই কর্মীরা জাহাজে চেপে যাত্রা শুরু করেছিলেন। কিন্তু করোনার সংক্রমণ বাড়তে থাকায় বিভিন্ন দেশ তাদের স্থল, জল ও আকাশসীমা বন্ধ করে দিয়েছে। ফলে অনেক জাহাজকর্মীর যাত্রা শেষ হলেও তাঁরা আর দেশে ঢুকতে পারছেন না। এই পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলেছে, বার্তা সংস্থা এএফপি । এএফপি লিখেছেন, ভারতের একটি কার্গো জাহাজে প্রায় ৩০ হাজার ভারতীয় কর্মী এই পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে কাজ করেন । মহামারির কয়েক মাস আগেই তাঁরা প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে চুক্তি নবায়ন করেছিলেন।

জাহাজের কর্মীরা সাধারণত ছয় থেকে আট মাস টানা কাজ করে থাকেন। এরপর আরেক দল কর্মীর কাছে জাহাজ বুঝিয়ে দিয়ে জাহাজ থেকে নামতে পারেন। কিন্তু করোনা মহামারির কারণে এবার সেটা সম্ভব হয়নি। এই পরিস্থিতিতে তাঁদের বাড়ি ফেরার বিষয়টি নিশ্চিত করতে যুক্তরাজ্যে একটি আন্তর্জাতিক মেরিটাইম সামিট অনুষ্ঠিত হয়েছে সম্প্রতি।

Leave a Reply