কাবুলের বিমানবন্দর থেকে লোকজন সরিয়ে নেওয়ার অভিযান শেষ পর্যায়ে এনেছে যুক্তরাষ্ট্র। ্বইতিমধ্সাযে ১২ বাংলাদেশী নাগরিক দোহা হয়ে দেশে ফিরেছেন। মরিক নাগরিকদের সরিয়ে নেওয়ার অভিযান গতকাল শনিবারই শেষ ঘোষণা করেছে যুক্তরাজ্য। আফগানিস্তানে আরও হামলার আশঙ্কা জানিয়ে দ্রুতই শেষ হচ্ছে বিমান বন্দরটি।

এদিকে যুক্তরাস্ট্র জানিয়েছে কাবুল বিমানবন্দরে হামলার পরিকল্পনাকারীদের একজনকে হত্যা করা হয়েছে।শুক্রবার রাতে মার্কিন সেনাবাহিনীর এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় নানগরহার প্রদেশে ইসলামিক স্টেট খোরাসান প্রভিন্সের (আইএসকেপি) ওই সদস্যকে নিশানা করা হয়েছিল। মধ্যপ্রাচ্য থেকে উড়াল দেওয়া ড্রোন দিয়ে চালানো হামলায় ওই পরিকল্পনাকারী তাঁর এক সঙ্গীসহ নিহত হয়েছেন। এদিকে তালেবানের একজন জ্যেষ্ঠ কমান্ডারের বরাত দিয়ে গতকাল আল-জাজিরা জানিয়েছে, হামলায় জড়িত সন্দেহে আইএসকেপির কয়েকজন সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তালেবানের গোয়েন্দারা তাঁদের জিজ্ঞাসাবাদ করছেন।র মধ্যে বৃহস্পতিবার ওই হামলার পর তড়িঘড়ি এই উদ্ধার অভিযান শেষ করছে বিভিন্ন দেশ। জার্মানি, স্পেন, ফ্রান্সসহ কয়েকটি দেশের পর গতকাল যুক্তরাজ্য ও ইতালিও তাদের উদ্ধার অভিযান শেষ করেছে। মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানায়, এ পর্যন্ত ১ লাখ ১৭ হাজার মানুষকে কাবুলের বিমানবন্দর থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। শুক্রবার ১২ ঘণ্টায় ৪ হাজার ২০০ জনকে সরিয়ে নেওয়া হয়।