ট্রান্সকম চেয়ারম্যান সিইও
শাহনাজ রহমান ও সিমিন রহমান

দেশের অন্যতম বৃহৎ গ্রুপ  ট্রান্সকমের নতুন চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) হলেন শাহনাজ রহমান। তিনি গ্রুপের সাবেক চেয়ারম্যান প্রয়াত লতিফুর রহমানের স্ত্রী। শাহনাজ রহমান ট্রান্সকম গ্রুপের পরিচালক হিসেবে দীর্ঘ বছর থেকেই দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন।

গ্রুপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার (সিইও) দায়িত্ব পালন করবেন সিমিন রহমান । পর্ষদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, গ্রুপের সব কোম্পানি ও সহযোগী কোম্পানির পরিচালনা, ব্যবস্থাপনা ও নিয়ন্ত্রণের দায়িত্বও পালন করবেন সিমিন রহমান।  গতকাল রোববার এক ঘোষণায় ট্রান্সকম লিমিটেড এ তথ্য জানিয়েছে।

আরও পড়ুন- অর্থনৈতিক মন্দায় এশিয়ার বৃহৎ দেশগুলো

সিমিন রহমান এসকেএফ ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড, ট্রান্সকম ডিস্ট্রিবিউশন লিমিটেড এবং ট্রান্সকম কনজ্যুমার প্রোডাক্টস লিমিটেডের এমডির দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি গ্রুপের অন্যান্য কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন।

ঘোষণায় বলা হয়েছে, গ্রুপের পরিচালনা পর্ষদ সম্প্রতি শাহনাজ রহমানকে গ্রুপের চেয়ারম্যান ও এমডি হিসেবে দায়িত্ব পালন করার অনুমোদন দিয়েছে। গ্রুপের সব সহযোগী কোম্পানিরও চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করবেন তিনি।

স্বেচ্ছায় পদত্যাগের আগ পর্যন্ত দুজনেই যাঁর যাঁর দায়িত্বে থাকবেন বলে ঘোষণায় উল্লেখ করা হয়। বলা হয়, ট্রান্সকম গ্রুপের পরিচালনা পর্ষদ নতুন চেয়ারম্যান ও গ্রুপ সিইওকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করবে বলে জানিয়েছে।

শাহনাজ রহমান ২০১৯ সালে ঢাকা সিটির নারীদের মধ্যে শীর্ষ করদাতা হন। ২০১৭ সালে তাঁর পরিবারকে ‘কর বাহাদুর’ ঘোষণা করে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)।

সিমিন রহমান লতিফুর রহমান-শাহনাজ রহমান দম্পতির মেয়ে। তিনি মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (এমসিসিআই) নির্বাহী সদস্য।

দেশের শীর্ষস্থানীয় ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান ট্রান্সকম গ্রুপের রয়েছে ১৩০ বছরের ব্যবসায়িক ঐতিহ্য। ওষুধ, ইলেকট্রনিকস, খাদ্য ও পানীয়, চা, ভোগ্যপণ্য, মিডিয়াসহ ৯টি খাতে গ্রুপের ব্যবসা রয়েছে। ১৮ হাজারের বেশি মানুষ গ্রুপের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কর্মরত।

আরও পড়ুন- ২২ দিন পর টেকনাফে মিয়ানমারের পণ্যবাহী ট্রলার