এমবিএ

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিত এমবিএ পরীক্ষার ফলাফলে সারা বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের মধ্যে
বিস্ময়কর সাফল্য অর্জন করেছে ড্যাফোডিল ইনস্টিটিউট অব আইটির (DIIT) শিক্ষার্থীরা।

২০২১ সালের এমবিএ-র ফলাফলে দেখা যায়, সারা দেশের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ডিআইআইটির শিক্ষার্থীরা মেধা তালিকায় ১ম থেকে ১০ম স্থান অর্জন করেছে। এবছর এই প্রতিষ্ঠানের ৮০ শতাংশ শিক্ষার্থী জিপিএ ৩.৫০ পেয়েছে। এদের মধ্যে ৭ জন শিক্ষার্থী পেয়েছে জিপিএ ৪.০০ এর স্কেলে ৪.০০, যা DIIT-র ২৫ বছরের ইতিহাসে এ এক ঐতিহাসিক অর্জন।

ড্যাফোডিল ইনস্টিটিউট অব আইটি ১৯৯৬ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা শুরু করে ড্যাফোডিল পরিবারের প্রথম শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে I জীবন ভিত্তিক শিক্ষা বাস্তবায়নে চাকরির প্রস্তুতি, দক্ষতা বৃদ্ধি, উদ্যোক্তা সৃষ্টি, কর্ম জীবনে সফলতা, আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করতে সম্মিলিত শিক্ষার মাধ্যমে শিক্ষা কার্যক্রমকে আরো যুগোপযোগী করে তুলেছে প্রতিষ্ঠানটি । DIIT বিশ্বাস করে, শিক্ষকমন্ডলী, অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের সম্মিলিত প্রচেষ্টা সফলতার মূল কারণ I বাংলাদেশের শিক্ষা ক্ষেত্রে একটি অনুকরণীয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে কাজ করার লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে DIIT।অধ্যক্ষ দক্ষ নেতৃত্ব, অভিজ্ঞ সুদক্ষ শিক্ষকমন্ডলীর প্রচেষ্টা, প্রযুক্তিগত জ্ঞান অর্জন, যুগোপযোগী শিক্ষা, দক্ষতা ভিত্তিক জ্ঞান, সরকারি ও বেসরকারি চাকরির প্রস্তুতি মূলক পরীক্ষা গ্রহণ, নেতৃত্বের শিক্ষাদান, নাগরিক দায়িত্ব ও মূল্যবোধের শিক্ষা ইত্যাদি DIIT-র শিক্ষার্থীদের তথা প্রতিষ্ঠানটির অভূতপূর্ব সাফল্যে প্রতিষ্ঠানটিকে রোল মডেল হিসেবে গড়ে তুলেছে।

আরও পড়ুনঃ- উচ্চ শিক্ষায় ডি আই আই টি তে ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট