অধ্যাপক-শিবলী-রুবাইয়াত-উল-ইসলাম-2101100933

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বলেছেন, শেয়ারবাজারে ১০০ জনের মধ্যে ৫ জন দুষ্ট লোক রয়েছে। এই গুটি কয়েক দুষ্ট লোক নিয়েই যত সমস্যা। তাদের জন্য ৯৫ জনের সমস্যা হতে দেওয়া যাবে না।

মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) রাজধানীর ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ ভবনে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় তিনি বলেন, আমাদের বর্তমান সরকার খুবই ব্যবসাবান্ধব। আমরা আমাদের অবস্থান থেকে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে যখনই আমরা কোন কথাবার্তা আলাপ-আলোচনা করি, তখনই আমরা অনুভব করি, তাদের ভাষ্যনুযায়ী, ব্যবসাকে আমাদের সাহায্য করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক ও সরকার খুবই দয়ালু। অনেক সুযোগ সুবিধা দিচ্ছে। তারপরও আজ মন্দ ঋণের পরিমাণ ১ লাখ কোটি টাকার উপরে। আজকে যদি বলা হয়, রিশিডিউলিং জীবনে একবারের বেশি দেওয়া হবে না। অথবা ৫ বছরের বেশি একবার যাবে না। তাহলে কোথায় যাবে নন-পারফর্মিং লোন। ব্যাংকিং সেক্টর কলাপস (ধস) হয়ে যাবে। এই জিনিসটিকে নিয়ে যে আমরা কি ঝুঁকি নিয়ে এগোচ্ছি। কত বছর যাবত করছি, এভাবে আর কত দিন যাবত চলবে।

শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বলেন, শেয়ারবাজার হচ্ছে দীর্ঘ মেয়াদী অর্থ সংগ্রহের জায়গা। যেখান থেকে ব্যবসায়ীরা প্রয়োজন মতো অর্থ সংগ্রহ করতে পারেন। আর ব্যাংক হচ্ছে স্বল্প মেয়াদী ঋণের জায়গা। যেখান থেকে প্রয়োজন অনুযায়ি অর্থ পেতে ব্যবসায়ীদের হিমশিম খেতে হয়। তিনি বলেন, শেয়ারবাজারে করপোরেট কালচারের মজাই আলাদা। পাবলিক লিমিটেড কোম্পানির মত এত বড় সম্মানের জায়গা আর কোথাও নেই। সেজন্য করপোরেট গ্রাহকদের শেয়ারবাজারের দিকে মনোযোগ দিতে হবে।

ডিএসই সূত্রে জানা গেছে, দেশে সুনামের সঙ্গে ব্যবসা করা অনেক বড় কোম্পানি এখনো পুঁজিবাজারের বাইরে রয়ে গেছে। পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হওয়ার মাধ্যমে কর সুবিধা পাওয়ার পরও এসব কোম্পানি তালিকাভুক্ত হচ্ছে না।

কেন কোম্পানিগুলো পুঁজিবাজারে আসছে না তা জানার লক্ষ্যেই মূলত ৮৫ শিল্পগোষ্ঠীর শীর্ষ ব্যক্তিদের সঙ্গে বৈঠকে বসার উদ্যোগ নিয়েছে ডিএসই। এর আগে কখনো ডিএসইর পক্ষ থেকে এমন উদ্যোগ নেয়া হয়নি।

জানা গেছে, বৈঠকে স্কয়ার গ্রুপ, সিটি গ্রুপ, প্রাণ-আরএফএল গ্রুপ, বেক্সিমকো গ্রুপ, বসুন্ধরা গ্রুপ, টি কে গ্রুপ, পারটেক্স গ্রুপ, ট্রান্সকম গ্রুপ, ইনসেপটা, ডিবিএল গ্রুপ, আনোয়ার গ্রুপ, ওরিয়ন গ্রুপ, নাসা গ্রুপ, উত্তরা গ্রুপসহ দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগোষ্ঠীর চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালকদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কমিশনার অধ্যাপক শেখ সামসুদ্দিন আহমেদ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডিএসইর চেয়ারম্যান ইউনুসুর রহমান। এছাড়া আরও উপস্থিত ছিলেন, দেশের বড় বড় শিল্প প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান, ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও প্রতিনিধিরা।