কুবি উপাচার্যের নেতৃত্বে আইকিউএসি’র সফলতা

আইকিউএসি বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন যে উদ্যোগ নিয়েছিলো তার সফল বাস্তবায়ন করছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুবি) বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক . এমরান কবির চৌধুরীর নেতৃত্বেআইকিউএসি বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয়টি।

জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষার গুণগত মান নিশ্চিত করা, মান সম্মত গ্র্যাজুয়েট তৈরী করে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা রাখার প্রয়াসে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনআইকিউএসি উদ্যোগ নেয়।এ প্রকল্পের উদ্দেশ্যে ছিল বিশ্ববিদ্যালয়েকোয়ালিটি এ্যাডুকেশন কালচারউন্নয়ন শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করা।

ইউজিসির উদ্যােগের পর উপাচার্যের তত্ত্বাবধানে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে জানুয়ারি, ২০১৬ ‘‘Establishment of IQAC at Comilla University’’ নামে প্রকল্প চালু হয় এবং যা ডিসেম্বর, ২০১৮ সমাপ্ত হয়।

পরবর্তীতে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের নির্দেশনানুযায়ী কাজ করে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে আইকিউএসি স্থায়ী ইনটিউট হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়।কোয়ালিটি এ্যাডুকেশন কালচারউন্নয়ন শিক্ষার উদ্দেশ্যে সমূহ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে উপাচার্য অধ্যাপক . এমরান কবির চৌধুরীর সম্মতিক্রমে বিশ্ববিদ্যালয়েআইকিউএসি বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে।

আইকিউএসির উদ্দেশ্য হলো-

১। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্যেকটি বিভাগে সেলফঅ্যাসেসম্যান্ট কার্যক্রম পরিচালনা করা।

২। কোয়ালিটি এ্যাডুকেশন কালচার উন্নয়নে প্রয়োজনীয় কার্যক্রম গ্রহণ করা।

৩। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা এবং কর্মচারীদের জন্য সংশ্লিষ্ট বিষয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা।

৪। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে দক্ষতা অর্জনে ছাত্রছাত্রীদের জন্য কর্মশালা/প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা।

আইকিউএসি কর্তৃক আয়োজিত কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে কার্যক্রম সমূহ: (২০১৮-২০২০)

. শিক্ষার গুণগত মান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সঠিকভাবে শিক্ষাদান পদ্ধতি এবং দক্ষতা বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে প্রভাষক সহকারী অধ্যাপকদের ‘Teaching-Learning and Assessment Methods/Techniques’ এর উপর গত ৩০ জানুয়ারি, ২০১৮, ১১ অক্টোবর, ২০১৮ ,২১২২ অক্টোবর,২০১৯ এবং ১০ মার্চ, ২০২০ইং তারিখে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়।

. মানসম্মত দক্ষ গ্র্যাজুয়েট তৈরীর উদ্দেশ্যে সহকারী অধ্যাপক সহযোগী অধ্যাপকদের ‘Outcome Based Curriculum Development’ এর উপর ২৭ আগস্ট,২০১৯ এবং ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং তারিখে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। এছাড়াও আগস্ট, ২০১৮ইং তারিখে সকল সেলফঅ্যাসেসম্যান্ট কমিটির প্রধান সদস্যদেরকে নিয়ে Outcome Based Curriculum Development আন্তর্জাাতিক সেমিনার করা হয়।

. উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে সামগ্রিকভাবে টেকসই উন্নয়ন সামাজিক উন্নয়নে অংশগ্রহণের ক্ষেত্রে গবেষণা গবেষণা পদ্ধতি, প্রপোজাল, রিপোর্ট রাইটিংএর গুরুত্বপূর্ণ মিকা রাখতে বিজ্ঞান অনুষদের সকল সহকারী অধ্যাপক প্রভাষকদের গত ২০ নভেম্বর, ২০১৯ তারিখে Research Methods: Tools and Techniques এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। গত ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯ তারিখে সামজিক বিজ্ঞান অনুষদের সকল শিক্ষকদের Research Methodology: Process, Proposal, and Report Writing এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয় এবং গত ২৪অক্টোবর ডিসেম্বর, ২০১৮ তারিখে Research Methodology and Methods for Social Scientists এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। এছাড়াও ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ তারিখে বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের সকল শিক্ষকদের How to write a research Proposal? উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়।

. উচ্চ শিক্ষার গুণগত মান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি বিভাগের ভৌত অবকাঠামো উন্নয়ন, গবেষণা কার্যক্রম বৃদ্ধি, শিক্ষা কার্যক্রম ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে স্বীকৃত স্বরূপ গত ৩০ জুন, ২০১৯ তারিখে সকল ডিন, সকল বিভাগীয় প্রধান, হল প্রভোস্ট, উপদেষ্টা প্রশাসনিক দপ্তর প্রধানদের Quality Assurance and Accreditation এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়।

আরো পড়ুন- কুবি ছাত্রলীগের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচী

. বিভিন্ন ডকুমেন্টসসমূহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগ দপ্তরের ওয়েব পেইজে যথাযথভাবে দেয়ার লক্ষ্যে গত ২৯ অক্টোবর, ২০১৯ তারিখে University Web.Profiling এর উপর শিক্ষক কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়।

. শিক্ষার গুণগত মান নিশ্চিত করা, মান সম্মত গ্র্যাজুয়েট তৈরী করে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা রাখার প্রয়াসে বিভিন্ন বিভাগে সেলফ অ্যাসেসম্যান্ট প্রোগ্রামের উপর প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। গত ১৫ মে, ২০১৮ তারিখে Data Management, Report-Writing and EPR Facing এর উপর প্রশিক্ষণ, গত ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ তারিখে Preparation of Post Self-Assessment Improvement Plan এর উপর প্রশিক্ষণ, গত ২৫ জুন, ২০১৯ তারিখে Self-Assessment Awareness Building এর উপর প্রশিক্ষণ, গত ২৪ জুলাই, ২০১৯ তারিখে Team Building for Self-Assessment and Outcome Based Education এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। এছাড়াও দেশীয়বিদেশী বিশেষজ্ঞ দ্বারা বিভিন্ন বিভাগের সেলফ অ্যাসেসম্যান্ট রিপোর্ট (External Peer Review) মূল্যায়নের ব্যবস্থা করা হয়।

. শিক্ষা কাযক্রর্মের গুণগত মান নিশ্চিত করার পাশাপাশি সহশিক্ষা কার্যক্রমের অংশ হিসেবে স্টুডেন্ট সাপোর্ট সার্ভিস এর আওতায় Outcome Based Education এর গুরুত্ব বিবেচনায় ছাত্রছাত্রীদের গত ১৫১৯ মার্চ, ২০১৮ তারিখে Outsourcing/Freelancing in Comilla University এর উপর প্রশিক্ষণের আয়োজন করা হয়েছে এবং গত ২০ মার্চ, ২০১৮ তারিখে IT Innovation & Entrepreneurship Development Gi এর উপর কর্মশালার আয়োজন করা হয়েছে। কর্মশালাটি ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া জাগায় এবং অর্থ উপার্জনের একটি ক্ষেত্র তৈরী হয়েছে বলে অনেকে মন্তব্য করেন। কর্মশালাটি সমাপ্ত হওয়ার পরপরই ব্যবস্থাপনা বিভাগের ছাত্র মোঃ বায়েজিদ ইসলাম (গল্প) ফ্রিল্যান্সার হিসেবে ঘন্টায় ডলার কাজ করার একটি অফার পায়।

. শিক্ষার মান উন্নয়ন, সুষ্ঠু পরিবেশ নীতিগত দিক থেকে একজন শিক্ষক তার সহকর্মী ছাত্রছাত্রীদের প্রতি দায়িত্ব কর্তব্য পালনে গত অক্টোবর, ২০১৮ তারিখে সকল বিভাগীয় প্রধান সেলফ অ্যাসেসম্যান্ট কমিটি প্রধান এবং সদস্যদের The Role & Responsibility and Ethical Principles of University Teachers’ and ‘Post Self-Assessment Improvement Plan এর উপর প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে।

. আইকিউএসি সকল কার্যক্রমকে গতিশীল বাস্তবায়ন করার ক্ষেত্রে গত ২৩ জুলাই, ২০১৯ তারিখে উপাচার্য প্রফেসর . এমরান কবির চৌধুরী মহোদয়ের সভাপতিত্বে Quality Assurance Committee (QAC) সভা অনুষ্ঠিত হয়।

১০. বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষক ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন সুবিধা প্রাপ্তীর লক্ষ্যে গত জুলাই, ২০১৯ তারিখে সকল ডিন, সকল বিভাগীয় প্রধান, সকল হল প্রভোস্ট দফতর প্রধানদের উপস্থিতিতে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে মালয়েশিয়া বাইনারী বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে সমঝোতা স্বারক চুক্তি অনুষ্ঠিত হয় এবং গত আগস্ট, ২০১৯ তারিখে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন একাডেমির মধ্যে সমঝোতা স্বারক চুক্তি অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়াও গত ১৯ ডিসেম্বর, ২০১৯ তারিখে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় আমেরিকান ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশ স্টাডিজ এর মধ্যে সমঝোতা স্বারক চুক্তি অনুষ্ঠিত হয়।

আইকিউএসির কার্যক্রমের বিষয়ে জানতে চাইলে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক . এমরান কবির চৌধুরী বিবার্তাকে বলেন, আমি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের যোগদানের পর দেখলাম বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের উদ্ভাসিত আইকিউএসির কোনো কার্যক্রমই নেই! অথচ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা এবং কর্মচারীদের বিভিন্ন বিষয়ে কর্মশালা প্রশিক্ষণের জন্য এটার বিকল্প নেই। তাই আমি সাথে সাথে ডিরেক্টরকে বিষয়ে দ্রুত কাজ করতে তাগিদ দিয়েছি এবং তাকে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেছি। এরপর তিনি কাজ শুরু করলেন। এভাবে আমরা ধাপে ধাপে এগিয়ে গেছি আর আইকিউএসির কার্যক্রমগুলো বাস্তবায়ন করেছি।

তিনি বলেন, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটার মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেকবর্তমানদের মিলন মেলা হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডেও অ্যালামনাই জড়িত থাকে। তাই আমি আইকিউএসির মাধ্যমে কাজটি করার চেষ্টা করছি।

Leave a Reply