কাতার

করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে কাতার সরকার  জারি করেছে কঠোর বিধিনিষেধ। আর এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করলেই করা হচ্ছে জেল-জরিমানা। স্থানীয় নাগরিক ও অভিবাসীরা অন্য দেশ থেকে কাতারে ফিরে এলেই বাধ্যতামূলক সাত দিনের হোটেল কোয়ারেন্টিন থাকতে হবে। তবে এ বিধান থাকলেও প্রবাসীদের ফুল ডোজ ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে থাকছে না এই বিধান।

কম ঝুঁকিপূর্ণ ১৮ দেশ থেকে কাতারে ফিরে এলে দেশটির সরকারের নিয়ম অনুযায়ী ৭ দিন হোম কোয়ারেন্টিন, বাকি সব দেশ থেকেই কাতার ফিরে আসলেই বাধ্যতামূলক ৭ দিন হোটেল কোয়ারেন্টিনে থাকতে হয় নিজ খরচে বাকি ৭ দিন বাসায় হোম কোয়ারেন্টিন, ১৪ দিন পরে মিলে মুক্তি।

হোটেল কোয়ারেন্টিন আর হোম কোয়ারেন্টিনের ঝামেলা নিয়ে প্রয়োজন থাকার পরেও কেউ ছুটিতে যাওয়ার সাহস পাচ্ছিলেন না, ছুটিতে যাওয়াদের জন্য নতুন সুখবর দিল কাতার, ফুল ডোজ করোনা ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিদের জন্য ছুটি কাটিয়ে ফিরে আসতে লাগবে না কোয়ারেন্টিন, তবে শুধু কাতার থেকে ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিরাই এ সুবিধা পাবেন।

আরো পড়ুন:- নাইজেরিয়ায় সামরিক বিমান বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ৭

অভিবাসী ও স্থানীয় নাগরিক মিলিয়ে ২৬ লাখের বেশি জনসংখ্যার দেশ কাতারে এরই মধ্যে প্রায় দেড় লাখ মানুষকে ভ্যাকসিনের আওতায় আনা হয়েছে। তবে আপাতত কেবল সম্মুখসারির করোনা যোদ্ধা, বয়স্ক এবং জটিল রোগীদেরকেই টিকা বিনামূল্য টিকা দিচ্ছে কাতার সরকার।

কাতারে বর্তমানে করোনায় আক্রান্ত চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা প্রায় ১০ হাজার, এখনো প্রতিদিন গড় আক্রান্ত হার ৪৫০ জনের বেশি, দেশটি এ পর্যন্ত মৃত্যুবরণ করেছেন ২৫৬ জন।

2 মন্তব্য

Leave a Reply